নারী দশকের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য

0
ফেইসবুকে আমাদের সকল আপডেট পেতে Follow বাটনে ক্লিক করুন।




প্রশ্ন ॥ নারী দশকের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য সংক্ষেপে আলোচনা কর অথবা, নারী দশকের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য লিখ। অথবা, নারী দশকের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য সংক্ষেপে বর্ণনা কর। অথবা, নারী দশকের মূল বৈশিষ্ট্য সম্পর্কে আলোচনা কর। অথবা, বিশ্ব নারী দশকের লক্ষ্য এবং আদর্শ সম্পর্কে সংক্ষেপে আলোচনা কর।

নারী দশকের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য

প্রশ্ন ॥ নারী দশকের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য সংক্ষেপে বর্ণনা কর।

বিশ্ব মানবতার সর্বশ্রেষ্ঠ এবং সর্ববৃহৎ প্রতিষ্ঠান হলো জাতিসংঘ। ১৯৪৫ সালে জাতিসংঘ প্রতিষ্ঠা করা হয়। বিশ্বব্যাপী নির্যাতিত, অবহেলিত এবং বৈষম্যের শিকার নারী সমাজের প্রকৃত উন্নয়নে জাতিসংঘের ভূমিকা অপরিসীম। জাতিসংঘের অন্যতম লক্ষ্যই ছিল বিশ্বব্যাপী নারী সমাজের অধিকার প্রতিষ্ঠা করা এবং নারীর ক্ষমতায়ন করা।

বিশ্ব নারী দশকের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য : 

বিশ্ব নারী দশকের ঘোষণা করে জাতিসংঘ। জাতিসংঘ ১৯৭৫ সালে মেক্সিকোতে প্রথম বিশ্ব নারী সম্মেলনের আয়োজন করে। যার মূল লক্ষ্য ছিল নারী সমাজের অগ্রগতির উপায় সম্পর্কে আলোচনা। 

১৯৭৫ সালে বিশ্ব নারীবর্ষের সম্মেলনে ১৯৭৬-১৯৮৫ সাল পর্যন্ত সময় কালকে নারী দশক হিসাবে ঘোষণা করা হয়। নিম্নে নারী দশকের লক্ষ্য এবং উদ্দেশ্য সম্পর্কে আলোচনা করা হলো :

১. সাম্য প্রতিষ্ঠা : 

বিশ্ব নারী দশকের প্রধান লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য ছিল বিশ্বব্যাপী নারী ও পুরুষের সমান অধিকার প্রতিষ্ঠা করা। অর্থাৎ নারীকে পুরুষের সমান মর্যাদা দেওয়া এবং মানুষ হিসাবে সমান অধিকার। সুযোগ-সুবিধা ও সমতার নিশ্চয়তা প্রতিষ্ঠা করা। 

২. উন্নয়ন সাধন : 

উন্নয়ন ছাড়া কোন সমাজ বা গোষ্ঠির প্রকৃত উন্নয়ন প্রতিষ্ঠা করা সম্ভব নয়। তাই নারী দশকের মূল লক্ষ্য ছিল নারীর উন্নতি ও ক্ষমতায়নের জন্য নারীর উন্নয়ন সাধন করা।

৩. বিশ্বব্যাপী শান্তি প্রতিষ্ঠা করা : 

নারীর বসবাসের বিশ্বকে আরো বেশি সুন্দর, নিরাপদ এবং কণ্টকমুক্ত করার জন্য নারী দশকের মূল লক্ষ্য ছিল বিশ্ব ব্যাপী শান্তি প্রতিষ্ঠা করা।

৪. নারীর প্রকৃত অধিকার প্রতিষ্ঠা করা : 

বিশ্ব নারী সম্মেলনের অন্যতম একটি উদ্দেশ্য ছিল নারী সমাজের প্রকৃত অধিকার প্রতিষ্ঠা করা। অধিকার ছাড়া কখনই মানুষ তার মেধা এবং ব্যক্তিত্বের বিকাশ সাধন সম্ভব নয়। তাই নারী উন্নয়নের জন্য নারী দশকের মূল লক্ষ্য ছিল নারীর অধিকার প্রতিষ্ঠা করা। 

৫. শিক্ষা ও সচেতনতার বিকাশ : 

শিক্ষা এবং সচেতনতা ছাড়া কখনই মানুষ তার অধিকার ও কর্তব্য সম্পর্কে সচেতন হতে পারে না। তাই নারী দশকের উদ্দেশ্য ছিল নারী সমাজের মধ্যে প্রকৃত শিক্ষার বিকাশের মধ্যে দিয়ে সচেতনতার প্রসার ঘটানো ।

৬. বিবাহ ও সন্তান ধারণে স্বাধীনতা প্রদান:

 নারী দর্শকের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যের মধ্যে অন্যতম ছিল নারীর বিবাহ ও সন্তান ধারণের ক্ষেত্রে তাদের নিজস্ব মতামতের স্বাধীনতা প্রতিষ্ঠা করা।

উপসংহার : 

পরিশেষে বলা যায় যে, বিশ্ব নারী দশকের মূল উদ্দেশ্য ছিল নারীর সুকুমার বৃত্তিগুলোর বিকাশের মাধ্যমে নারীর প্রকৃত বিকাশের পথকে উন্মোচিত করা।

Post a Comment

0Comments
Post a Comment (0)