দ্বিমাত্রিক বস্তুর গল্প ৬ষ্ঠ শ্রেণির গণিত ২য় অধ্যায় সমাধান (PDF)

0
ফেইসবুকে আমাদের সকল আপডেট পেতে Follow বাটনে ক্লিক করুন।




দ্বিমাত্রিক বস্তুর গল্প ৬ষ্ঠ শ্রেণির গণিত ২য় অধ্যায় সমাধান (PDF) | Class 6 Math Chapter 2 Solution PDF

দ্বিমাত্রিক বস্তুর গল্প ৬ষ্ঠ শ্রেণির গণিত ২য় অধ্যায় সমাধান (PDF) | Class 6 Math Chapter 2 Solution PDF

৬ষ্ঠ শ্রেণির গণিত ২য় অধ্যায় সমাধান (PDF)

বিন্দু কাকে বলে?

যার কেবল অবস্থান আছে কিন্তু দৈর্ঘ্য, প্রস্থ, উচ্চতা বা বেধ বলতে কিছুই নেই তাকে বিন্দু বলে। দৈর্ঘ্য, প্রস্থ এবং উচ্চতা কোনো কিছুই নেই বলে বিন্দুর কোনো মাত্রা নেই অর্থাৎ, বিন্দুর মাত্রা শুণ্য। বেশকিছু বিন্দু চিত্র। স্থানাঙ্ক জ্যামিতিতে, বিন্দু হলো স্থানিক অনন্য অবস্থান।

বক্ররেখা কাকে বলে?

রেখা (ইংরেজি: Line) হলো একাধিক বিন্দুর পারস্পরিক সংযোগের ফলে সৃষ্ট পথবিশেষ। অন্যভাবে বললে একটি বিন্দুর চলার পথকে রেখা বলা হয়। এই চলার পথটি যখন সোজা বা সরল হয়, তখন তাকে সরলরেখা বলা হয় আর যখন পথটা বাঁকা হয়, তখন যে পথটি সৃষ্টি হয় তাকে বলা হয় বক্ররেখা।

রেখাংশ  কাকে বলে?

রেখাংশ কাকে বলেঃ যার নির্দিষ্ট দৈর্ঘ্য ও দুইটি প্রান্তবিন্দু আছে তাকে রেখাংশ বলে। বা প্রকৃতপক্ষে রেখা হল কতগুলো বিন্দুর সমষ্টি। রেখার সীমাবদ্ধ অংশকে রেখাংশ (Parts of line) বলে। অন্যভাবে একটি রেখার উপর দুইটি ভিন্ন বিন্দু হলে ঐ বিন্দু দুইটিসহ তাদের অন্তর্বর্তী সকল বিন্দুর সেটকে বিন্দু দুইটির সংযোজক রেখাংশ বলা হয়।

রশ্মি  কাকে বলে?

এক প্রান্ত বিশিষ্ট যার কেবলমাত্র দৈর্ঘ্য আছে , প্রস্থ ও উচ্চতা নেই এবং একবিন্দু থেকে অন্য বিন্দু যেতে কোনো দিক পরিবর্তন করে না , তাকে রশ্মি বলে।

দ্বিমাত্রিক বস্তুর গল্প গণিত ২য় অধ্যায় সমাধান


তল কাকে বলে?

”যেকোনো ঘনবস্তুর এক কিংবা একাধিক উপরিভাগ বা পৃষ্ঠ রয়েছে। প্রতিটি ঘনবস্তুর উপরিভাগকেই ঘনবস্তুর তল বলা হয়। যে জিনিসের দৈর্ঘ্য ও প্রস্থ আছে কিন্তু বেধ বা উচ্চতা নেই তাকে তল বলে।”

রেখা(Parallel Line)বলে কাকে বলে?

সমান্তরাল রেখা কাকে বলে? উত্তরঃ যদি একই সমতলে অবস্থিত দুই বা ততোধিক সরলরেখা চলার পথে পরস্পরকে কোথাও স্পর্শ না করে সর্বদা সমান দূরত্ব বজায় রেখে চলে তবে তাদেরকে সমান্তরাল রেখা(Parallel Line)বলে।


কোণ কাকে বলে?

দুইটি রশ্মির প্রান্তবিন্দু পরস্পর মিলিত হলে মিলিত বিন্দুতে কোণ উৎপন্ন হয়। অন্যভাবে বললে, দুইটি রশ্মির প্রান্তবিন্দু পরস্পর মিলিত হয়ে যে আকৃতি ধারণ করে তাকে কোণ বলে। আবার, দুইটি রেখাংশ পরস্পর প্রান্তবিন্দুতে মিলিত হয়ে যে জ্যামিতিক আকার ধারণ করে তাকে কোণ বলে। তাহলে সহজ করে বললে, দুইটি সরলরেখা পরস্পর মিলিত হলে কোণ উৎপন্ন হয়। এরূপ দুইটি সরলরেখা পরস্পর ছেদ করলে ছেদ বিন্দুতে চারটি কোণ উৎপন্ন হয়।

সন্নিহিত কোণ কাকে বলে?

যদি দুইটি কোণের একটি সাধারণ শীর্ষবিন্দু এবং একটি সাধারন বাহু থাকে তাহলে কোণ দুটিকে একটি অপরটির সন্নিহিত কোণ বলে। একই সমতলে অবস্থিত যদি দুইটি কোণের একটি সাধারন শীর্ষবিন্দু ও একটি সাধারন বাহু থাকে যেখানে সাধারন বাহুর বিপরীত পাশে কোণ দুটি অবস্থিত তখন কোণ দুটি কে পরস্পরের সন্নিহিত কোণ বলা হয়।

সমকোণ কাকে বলে?

যে কোণের পরিমাপ ৯০° তাকে সমকোণ বলে। অতএব, ৯০° পরিমাপের কোণই হলো সমকোণ।

৬ষ্ঠ শ্রেণির গণিত ২য় অধ্যায় সমাধান (PDF)


নিচের পিডিএফ ফাইলে যা যা সংযুক্ত করা হয়েছে তা হলো:-


1. জ্যামিতির মৌলিক ধারণা
2. কাগজের ত্রিভুজ
3. সুক্ষ্মকোণী ত্রিভুজের তিনটি উচ্চতা
4. সমকোণী ত্রিভুজের উচ্চতা
5. পাজল
6. স্থুলকোণী ত্রিভুজের উচ্চতা
7. ত্রিভুজের মধ্যমা নির্ণয় করো
8. অনুশীলনী
9. বিভিন্ন আকৃতির বস্তু খজি
10. বাম পাশের চিত্রগুলোর সাথে ডান পাশের শর্তগুশর্ত লো মিলাও।
11. গ্রিডে পাতা পরিমাপ পদ্ধতি
12. দলগত কাজ: আমাদের শ্রেণিকক্ষ কত বড়?
13. কর্মপত্র: পড়ার ঘর র্ম মেপে দেখি
14. বাস্তব সমস্যার গল্প
15. দ্বিমাত্রিক বস্তু পরিমাপের দলগত কাজের ক্ষেত্রে সতীর্থ মূর্থ ল্যায়নের জন্য রুব্রিক্স নমুনা


(getButton) #text=(ডাউনলোড করুন গণিত বই ২য় অধ্যায় সম্পূর্ণ সমাধান) #icon=(download)

Tags

Post a Comment

0Comments
Post a Comment (0)